জয়ে স্বস্তিতে রিয়াল ও জিদান

ক্রীড়া ডেস্ক | | প্রকাশিত: ৫ নভেম্বর ২০২০ ১০:৪০; আপডেট: ২৮ জুলাই ২০২১ ১৩:০১

লা লিগায় দ্বিতীয়তে থাকা রিয়াল মাদ্রিদ চ্যাম্পিয়নস লিগের প্রথম দু’ম্যাচেই ছিল জয়শূন্য। অবশেষে মঙ্গলবার ইন্তার মিলানকে ৩-২ গোলে হারিয়ে জয়ের দেখা পেয়েছে তারা। বদলি নেমে ৮০ মিনিটে জয়সূচক গোলটি করেন ১৯ বছরের ব্রাজিলিয়ান রদ্রিগো। যাদের কাছে রিয়াল হেরেছিল সেই শাখতার দোনেৎস্ককে ৬-০ গোলে ভাসিয়েছে বরুশিয়া মনশেনগ্লাডবাখ। ৩ ম্যাচে ৫ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে জার্মান ক্লাবটি। শাখতার ও রিয়ালের পয়েন্ট ৪; গোল ব্যবধানে পিছিয়ে ৩-এ রিয়াল। ২ পয়েন্ট নিয়ে ইন্তার নেমে গেছে ৪-এ। অর্থাৎ কাগজে-কলমে গ্রুপের শক্তিশালী দুটি দলই নিচের দিকে।

রিয়াল কোচ জিনেদিন জিদান ম্যাচটিকে ‘ফাইনাল’ বলে উল্লেখ করেছিলেন। ম্যাচটিও হলো ফাইনালের মতোই। আলফ্রেডো ডি স্টেফানো স্টেডিয়ামে প্রথমে এগিয়ে গিয়েছিল স্বাগতিকরা। ৩৩ মিনিটের মধ্যে করিম বেনজেমা ও অধিনায়ক সার্জিও রামোসের কৃতিত্বে দু’গোলে এগিয়ে যায় রিয়াল। রিয়ালের হয়ে শততম গোল করেন রামোস টনি ক্রুসের কর্নারে হেড করে। হেডে এটি তার ৫৫তম গোল।

দুই মিনিট পরই লাউতারো মার্তিনেজ ইন্তারের হয়ে ব্যবধান কমান। ৬৮ মিনিটে সমতা আনেন পেরিসিচ। এরপর আক্রমণ-পাল্টা আক্রমণ হলেও ম্যাচ গড়াচ্ছিল ড্রয়ের পথে। ৬৪ মিনিটে একই সঙ্গে বদলি হিসেবে মাঠে নামা দুই ব্রাজিলিয়ান ভিনি জুনিয়র ও রদ্রিগোর দারুণ বোঝাপড়ায় ৮০ মিনিটে জয়সূচক গোলটি আসে। ভিনির পাসে একেবারে ফাঁকায় বল পেয়ে গোল করেন রদ্রিগো।

‘জিদান আমাকে গোলের জন্য যেতে বলেছিল। আমি সব সময়ই তৈরি থাকি। আমি যখন মাঠে ঢুকি, গোল কিংবা অ্যাসিস্ট করে দলকে সাহায্য করতে চাচ্ছিলাম। এটা দারুণ এক রাত। এভাবেই এগিয়ে যাওয়ার আশা করছি।’ ম্যাচ শেষে বলেছেন রদ্রিগো। বদলি নামা দুই ব্রাজিলিয়ানের পারফরমেন্সে দারুণ খুশি জিদান, ‘তৃতীয় গোলের মুভটা ভালো ছিল। আমাদের তিন পয়েন্টের দরকার ছিল, ভিনি ও রদ্রিগো সেটা করেছে। দারুণ গোল। তাদের দুজনকে নিয়েই আমরা খুশি।’

বদলি নামা দুই ব্রাজিলিয়ানের পারফরম্যান্সে দারুণ খুশি জিদান বলেছেন, ‘এই গ্রুপে এখনো আমাদের জন্য কাজটা কঠিন। এরপর আমাদের ইতালিতে খেলতে যেতে হবে। সেটা হবে আরেকটি সত্যিকারের যুদ্ধ। আজকের তিনটি পয়েন্ট আমাদের জন্য খুব গুরুত্বপূর্ণ। আমি খেলোয়াড়দের জন্য খুশি, যারা ভালো একটি দলের বিপক্ষে নিজেদের উজাড় করে দিয়েছে।’

শতগোলের সঙ্গে ম্যাচ জয় আর কী চাই অধিনায়ক রামোসের। ‘ব্যক্তিগত রেকর্ডের বিষয় সবসময়ই দ্বিতীয়তে। কিন্তু যখন অনেক বছর ধরে আপনার অর্জন, প্রচেষ্টা এবং ত্যাগ স্বীকৃত হয় তখন বিষয়টি দুর্দান্ত। ১০০তম গোল প্রতিদিনের বিষয় নই। ডিফেন্ডার হিসেবে তো আরও নই। আমরা গুরুত্বপূর্ণ জয়টাও পেয়েছি। আমি খুশি, আশা করছি আরও (গোল) হবে’ বলেছেন তিনি।



বিষয়: জিদান


আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


এই বিভাগের জনপ্রিয় খবর
Top